20 C
Dhaka,BD
February 9, 2023
Uttorbongo
দিনাজপুর দেশজুড়ে রংপুর

বিপাকে আমন চাষিরা, বৃষ্টির দেখা নেই

দিনাজপুরের হিলিতে টানা তাপপ্রবাহে মাঠ ফেটে চৌচির হয়ে গেছে। বৃষ্টির দেখা না মেলায় আমন ধানের চারা রোপণ নিয়ে বিপাকে পড়েছেন কৃষকেরা। অনেকে সেচযন্ত্রের সাহায্যে জমি তৈরি করছেন। তবে এতে খরচ বেড়ে যাচ্ছে কৃষকের। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, আগামী সপ্তাহে বৃষ্টি হলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে।

উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর জানায়, হাকিমপুর উপজেলায় এবার ৮ হাজার ১৫৫ হেক্টর জমিতে আমন চাষের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। চলতি মাসের প্রথম থেকে চারা রোপণ শুরু হয়। কিন্তু টানা দুই সপ্তাহ ধরে চলা তাপপ্রবাহের কারণে চারা রোপণের জন্য তৈরি করা আমনের জমিগুলো শুকিয়ে গেছে। রোববার পর্যন্ত উপজেলাজুড়ে ১৫৫ হেক্টর জমিতে আমনের চারা রোপণ করা হয়েছে। অথচ গত বছরের জুলাইয়ের মাঝামাঝি সময়ে এর পরিমাণ ছিল প্রায় ৫ হাজার হেক্টর।

 

এদিকে, চলতি মৌসুমে পানির অভাবে সঠিক সময়ে চারা রোপণ করতে না পারায় বীজতলাতেই তা বাড়ছে। ফলে আমন ধানের উৎপাদন কমে যাওয়ার আশঙ্কা করছেন কৃষকরা। তবে কৃষি বিভাগ থেকে কৃষকদের সেচযন্ত্রের মাধ্যমে চারা রোপণের পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।

হাকিমপুর উপজেলার বিষাপাড়া গ্রামের কৃষক আনেজ উদ্দিন বলেন, কয়েকদিন ধরে বৃষ্টি নেই। বৃষ্টির জন্য আমাদের আমনের বীজতলা লাল হয়ে যাচ্ছে। চারা রোপণ করা যাচ্ছে না। এতে করে বেশ বিপাকে পড়তে হয়েছে। আমন আবাদ হয় বৃষ্টির পানিতে, এবার সেই বৃষ্টির দেখা নেই। আর প্রচণ্ড রোদে জমি পুড়ে যাচ্ছে। সেচযন্ত্র দিয়ে জমিতে পানি দিচ্ছি।

 

একই এলাকার আব্দুল মালেক মিয়া বলেন, দুই বিঘা জমি বর্গা নিয়ে আমন ধান চাষের জন্য বীজতলা তৈরি করেছি। শুরুতেই পানি সেচের যে টাকা খরচ হচ্ছে আবাদ শেষে লোকসানে পড়তে হবে।

মাধবপাড়া গ্রামের রানা ইসলাম বলেন, গত বছর আমার সব জমিতে আষাঢ় মাসেই আমনের চারা রোপণ শেষ হয়েছিল। এবার বৃষ্টি না হওয়ায় রোপণ করতে পারছি না। পানির অভাবে বীজতলাও শুকিয়ে যাচ্ছে।

 

কৃষক সোনা মিয়া জানান, জমিতে সেচ দেওয়ার পর নিমিষেই পানি হারিয়ে যাচ্ছে। দ্রুত বৃষ্টি না হয়ে তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকলে উৎপাদন খরচ বেড়ে যাবে। ধানের উৎপাদনও কম হবে।

হাকিমপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ডা. মমতাজ সুলতানা বলেন, কৃষি বিভাগ থেকে মাঠপর্যায়ে কৃষকদের সেচযন্ত্রের মাধ্যমে জমি তৈরি করে চারা রোপণের পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। তবে আবহাওয়া অধিদপ্তরের তথ্যমতে, আগামী সপ্তাহ থেকে বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। পর্যাপ্ত বৃষ্টি হলে আমন আবাদ নিয়ে কৃষকদের দুশ্চিন্তা থাকবে না।

Related posts

ট্রাকচাপায় প্রাণ গেলো বৃদ্ধার

Asha Mony

রংপুরে পুলিশের ব্যারিকেড ভাঙার চেষ্টা বিএনপির, আহত ১০

Asha Mony

কক্সবাজারে ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

Asha Mony